সাকিব-মাশরাফিকে অভিনন্দন জানানোর বিষয়ে মুখ খুললেন তামিম

আগামীকাল থেকে বাংলাদেশ ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় আসর বিপিএল শুরু হতে যাচ্ছে। আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য দল গঠনে যেহেতু এই ইভেন্টটি বিশাল ভূমিকা পালন করবে, তাই এখানে বাংলাদেশ ক্রিকেটে তামিম ইকবালের ভবিষ্যৎ সম্পর্কে একটি অভাস রয়েছে। বরাবরই বলে আসছেন এবারের বিপিএল নিয়ে নিজের ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাববেন তিনি।

এরই মধ্যে তাকে তার ফ্র্যাঞ্চাইজি ফরচুন বরিশালের অধিনায়কের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। দলের দায়িত্ব পাওয়ার পর বৃহস্পতিবার গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন তামিম ইকবাল। এ সময় জানতে চাইলাম অনেকদিন পর ফিরতে পেরে কেমন লাগছে।

জবাবে তামিম বলেন, ‘একটু রাসটিনেজ তো থাকবেই স্বাভাবিক। আর এই তিন মাসে সত্যি কথা বলতে খুব বেশি অনুশীলন করা হয়নাই। শেষ দুই আড়াই সপ্তাহধরেই মেইনলি ব্যাটিং করছি। ডে বাই ডে বেটার হচ্ছি। ওভার দ্য বিপিএল শুরুর আগে আমার পক্ষে যতটুকু সম্ভব সবই চেষ্টা করছি।’

বিপিএল নিয়ে অনেক আলোচনা-সমালোচনা। এবার কেমন আসর হবে জানতে চাইলে ইতিবাচক কথাই শোনা গেল তামিমের ভাষ্যে, ‘এটা ঠিক যে অনেক আলোচনা হয়, সমালোচনা হয় এটার সাথে আমরা কেইই ডিনাই করতে পারব না। আমাদের ডমেস্টিক ফরম্যাটে বিশেষ করে আমাদের টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে এটা সেরা টুর্নামেন্ট। এই টুর্নামেন্টের কারণে অনেক খেলোয়াড়ের আর্থিক সাহায্য হয় প্লাস ক্রিকেট যেভাবে চলে বিদেশি অনেক ক্রিকেটারের সাথে খেলি। হ্যাঁ আলোচনা থাকবে, অনেক সমালোচনাও থাকবে। আমরা ভালোটা মাঝে মাঝে ভুলে যাই। ভালোটা হলো আমরা খেলতে পারছি , আন্তর্জাতিক ক্রিকেটারদের সাথে খেলতে পারছি।’

এমপি হওয়ার পর সাকিব বা মাশরাফিকে অভিনন্দন জানিয়েছেন কী না বা দেখা হলে জানাবেন কী না এমন প্রশ্নে তামিম বলেন, ‘আমার সাথে এখনো দুইজনের কারোর সাথেই দেখা হয়নি। যদি দেখা হয় অবশ্যই কথা তো হবে তখন দেখা যাক কি হয়।’

ভবিষ্যতে তামিমকে রাজনীতিতে দেখা যাবে কী না, ‘ভাই এটা খুব রিস্কি একটা কথা, আমি না বললাম, আবার দেখা গেল দশ বছর হইলো। তখন আপনি এটাই দেখাই দিবেন আমি তো না বলছিলাম। এখন যদি বলি ওরকম কোনো প্নান নেই।’

Scroll to Top